বুধবার, ডিসেম্বর ৫, ২০১৮, ১১:০৭ অপরাহ্ণ

নিউজ মিডিয়া ২৪: ঢাকা : মনোনয়নপত্র বাতিলের বিরুদ্ধে তৃতীয় দিনের মতো আপিল চলছে নির্বাচন কমিশনে (ইসি)। বুধবার (৫ ডিসেম্বর) দুপুর ২টা পর্যন্ত ২২২ জন প্রার্থী আপিল করেছেন। তাদের মধ্যে রয়েছেন কাদের সিদ্দিকী, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। তবে, এই দুইজনের পক্ষে তাদের আইনজীবীরা আপিল আবেদন করেন। এছাড়াও, এদিন জাতীয় পার্টির সাবেক মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদারের স্ত্রী নাসরিন জাহান রত্নাও আপিল করেছেন।
এর আগে, গত তিন ও চার ডিসেম্বর ৩১৮ জন তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে ইসিতে আপিল করেছেন। এর মধ্যে সোমবার প্রথমদিন ৮৪ জন এবং দ্বিতীয় দিন মঙ্গলবার ২৩৭ জন প্রার্থী আপিল করেছেন। আজ বিকাল ৫ টায় শেষ হয়েছে আপিল গ্রহণ। আগামীকাল ৬ থেকে ৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিন দিন আপিলের ওপর শুনানি অনুষ্ঠিত হবে।
এদিকে, আজ বুধবার (৫ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা পর্যন্ত দেশের আট বিভাগ থেকে ২২২ জন প্রার্থী আপিল করেছেন। এ নিয়ে আজ (৫ ডিসেম্বর) শেষ সময় পর্যন্ত আপিল করেছেন মোট ৫৪৩ জন।
এর আগে, গত দুই দিনে মনোনয়ন পত্রের বৈধতা পেতে ইসিতে সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএসএম কিবরিয়ার ছেলে রেজা কিবরিয়া, সাবেক মন্ত্রী মীর নাছির, সাবেক সংসদ সদস্য গোলাম মওলা রনি, হিরো আলম, সাবেক উপমন্ত্রী রুহুল কুদ্দুস তালুকদার দুলু, জাতীয় পার্টির সাবেক মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার, নেত্রকোনা-১ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এমএ করিম আব্বাসী, জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য সোহেল রানা, মেজর (অব.) মনজুর কাদের, ইমরান এইচ সরকারসহ ৩১৮ জন।
উল্লেখ্য, গত ৮ নভেম্বর তফসিল ঘোষণা করে ইসি, পরে ১২ নভেম্বর পুন:তফসিল ঘোষণা করা হয়। ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী গত ২৮ নভেম্বর ছিল মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন। গত ২ ডিসেম্বর ছিল মনোনয়নপত্র যাচাই বাছাইয়ের শেষ দিন। এদিন সারা দেশে দাখিল করা ৩ হাজার ৬৫টি মনোনয়ন পত্র বাছাইয়ের পর ২ হাজার ২৭৯টি মনোনয়ন পত্র বৈধ এবং ৭৮৬টি মনোনয়ন পত্র বাতিল ঘোষণা করেন রিটার্নিং কর্মকর্তারা। বাতিল হওয়া প্রার্থীরা তাদের প্রার্থিতা ফিরে পেতে ৩ ডিসেম্বর থেকে আজ পর্যন্ত আপিল গ্রহণ করা হয়েছে। এরপর ৬ থেকে ৮ ডিসেম্ভর পর্যন্ত চলবে প্রার্থীদের আপিল গ্রহণের ওপর শুনানি। পরদিন ৯ ডিসেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন এবং ১০ ডিসেম্বর প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হবে। আগামী ৩০ ডিসেম্বর ভোট গ্রহণ।