আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সুনামগঞ্জ-৪ আসনে (সুনামগঞ্জ সদর ও বিশ্বম্ভরপুর) আওয়ামী লীগের প্রার্থী হতে চান দলের জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক এনামুল কবির ইমন। গত শনি ও রোববার সুনামগঞ্জের দুটি পৃথক অনুষ্ঠানে নৌকা প্রতীক নিয়ে এই আসনে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন তিনি।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, গত শনিবার দলের বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা শাখার ইফতার ও দোয়া মাহফিলে এনামুল কবির প্রথম নিজের প্রার্থিতার কথা ঘোষণা করেন। উপজেলা সদরের প্রেসক্লাব প্রাঙ্গণে এই অনুষ্ঠান হয়। অনুষ্ঠানে দলীয় নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে এনামুল কবির বলেন, বর্তমান সরকার সুনামগঞ্জে ব্যাপক উন্নয়নকাজ করছে, সে তুলনায় সদর ও বিশ্বম্ভরপুর উপজেলায় কাজ কম হয়েছে।

এই আসনে ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে দলের মনোনয়ন পেয়েছিলেন উল্লেখ করে এনামুল কবির বলেন, মহাজোটের স্বার্থে এই আসনটি জাতীয় পার্টিকে ছেড়ে দেওয়ায় তিনি দলের সভানেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নেন।

গত রোববার সুনামগঞ্জ পৌর শহরের একটি কমিউনিটি সেন্টারে ইফতার মাহফিলে আবার একইভাবে নৌকা প্রতীকে জাতীয় নির্বাচনের অংশ নেওয়ার কথা পুনর্ব্যক্ত করেন তিনি। এতে দলীয় নেতা-কর্মী ছাড়াও শহরের বিভিন্ন শ্রেণি ও পেশার লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

দলীয় সূত্রে জানায়, এনামুল কবির সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের প্রশাসক ছিলেন। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির জাতীয় নির্বাচনে এই আসনে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার পর তিনি জেলা পরিষদের প্রশাসক থেকে পদত্যাগ করেন। পরে এই আসনটি জাতীয় পার্টিকে ছেড়ে দেয় আওয়ামী লীগ। মনোনয়ন জমা দেওয়ার তিন দিন আগে যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটিতে থাকা সুনামগঞ্জ পৌর শহরের বাসিন্দা পীর ফজলুর রহমান মিসবাহ জাতীয় পার্টিতে যোগ দিয়ে মহাজোটের মনোনয়ন পান এবং বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাংসদ নির্বাচিত হন। নির্বাচনের পর এনামুল কবিরকে আবার জেলা পরিষদের প্রশাসক করা হয়। সর্বশেষ ২০১৬ সালে ২৫ ফেব্রুয়ারি জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে জেলা যুবলীগের আহ্বায়ক থেকে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হন তিনি। গত ২৮ ডিসেম্বরের জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দলের সমর্থন পান। কিন্তু জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল হুদার কাছে পরাজিত হন তিনি।

এনামুল কবির ইমন প্রথম আলোকে বলেন, ‘আমি তো গত নির্বাচনেই এখানে দলের মনোনয়ন পেয়েছিলাম। আমি মাঠে আছি, কাজ করে যাচ্ছি। আশা করি এবারও মনোনয়ন পাব এবং নৌকা প্রতীকেই নির্বাচন করব।’

Leave a Reply

Your email address will not be published.